ইউরোপীয়ান ইউনিয়ন সাইপ্রাস এবং গ্রীস থেকে প্রায় 100 শরণার্থীদেরকে ফিনল্যান্ড এবং জার্মানীতে স্থানান্তরিত করে

ইউরোপীয় এসাইলাম সাপোর্ট অফিসের (ইএএসও) প্রতিবেদনে অনুযায়ী , গত কয়েকদিন ধরে মোট 99 শরণার্থীদেরকে গ্রিস এবং সাইপ্রাস থেকে ফিনল্যান্ড এবং জার্মানি স্থানান্তরিত করা হয়েছে।

ইউর চলমান স্কিমের অংশ হিসাবে 24 জুলাই গুরুতর অসুস্থ শিশুদের পরিবার সহ মোট 83 জনকে গ্রীস থেকে জার্মানি স্থানান্তরিত করা হয়েছে। সাইপ্রাস এবং গ্রিস ছেড়ে যাওয়ার আগে, সমস্ত ব্যক্তির করোনা ভাইরাসের পরীক্ষা করা হয়েছিল।

ইএএসওর নির্বাহী পরিচালক নিনা গ্রেগরি সম্প্রতি সাইপ্রাস ও গ্রীস উভয় দেশ সফর করেছেন। তার সফরকালে, তিনি সাইপ্রাসে সাইপ্রাসের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী নিকোস নুরিসের সাথে সাক্ষাত করেছিলেন এবং অভিবাসন ও আশ্রয় মন্ত্রীর জিয়র্গোস কাউমাউসাকোসের সাথে দেখা করেছিলেন।

উভয় দেশ তাদের আশ্রয় ব্যবস্থা ও সুযোগ সুবিধাকে আধুনিকীকরণ ও সম্প্রসারণ করতে চায়। ইএএসও অনুসারে, বিশেষ সহায়তার প্রয়োজন ব্যক্তিদের গ্রীষ্মের মাসগুলিতে স্থানান্তরের কাজ চলবে। যদিও স্থানীয় কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে যে প্রায় ৫০০০ শরণার্থী গ্রিসে অস্বাস্থ্যকর পরিস্থিতিতে বসবাস করছে এবং তাদের জন্য উপযুক্ত নয় এমন আবাসন রয়েছে।

ইউরোপীয় ইউনিয়নের পরিসংখ্যান অফিস- ইউরোস্ট্যাট জানিয়েছে যে 2019 সালে ইউরোপীয় ইউনিয়নে আশ্রয়প্রার্থীদের মধ্যে ১৩,৮০০ জন শিশু ও ছিল। তাদের বেশিরভাগই গ্রিসে (৩,৩০০), জার্মানি (২,7০০) এবং বেলজিয়ামে (১,২০০) নিবন্ধিত ছিল।

বর্তমান করোনাভাইরাস পরিস্থিতির কারণে, ইএএসও প্রকাশ করেছে যে প্রাক-মহামারীকালীন সময়ে মে মাসে 84 শতাংশ কম আশ্রয় আবেদন করা হয়েছিল।

ইউরোপীয় ইউনিয়ন জুড়ে দেশগুলির একটি বিশাল অংশ COVID-19 এর বিস্তার রোধে তাদের কিছু প্রতিরোধমূলক ব্যবস্থা তুলে নিয়েছে, যদিও অনেক দেশে আশ্রয় কার্যক্রম এখনও পুরোপুরি শুরু হয়নি।

সূত্র: ইএএসও